তারেকের কাছে ক্ষমা চাইলেন আশরাফুল

আশরাফুল

আশরাফুল

ক্রীড়া প্রতিবেদক ::

প্রথমে আশরাফুল বললেন, “পুরো বিষয়টার সাথে নূর-এ-ক্রিকেট উৎপল শুভ্র’র কোন সম্পৃক্ততা নেই।” তারপর তিনি বলেন, “আমি তারেক ভাইয়ার কাছে ক্ষমা চাই।” বিশ্বের সর্বকনিষ্ঠ টেষ্ট সেঞ্চুরিয়ান মোহাম্মদ আশরাফুল আজ তার বাসায় সাংবাদিকদের সামনে এভাবেই বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ক্ষমা চান।

আশরাফুল বলেন, “প্রথমে বাজিকরদের কাছ থেকে টাকা নিয়েছি। তারপর টাকা খরচ করেছি। টাকা শেষ হওয়ার পর উৎপল শুভ্র আমাকে বলেছে তোমাকে আমি টাকা দিবো, তুমি আকসুর কাছে যাও। আমি বললাম কত টাকা? উৎপল দা ক্যালকুলেটরে বাটন টিপে টিপে টাকার অংক দেখান। আমি বলেছি এত কমে হবে না। উনার হাত থেকে ক্যালকুলেটর নিয়ে আমিও বাটন টিপে ডিমান্ড জানিয়ে দিই। দাদা বললেন ঠিক আছে দিবো। কিন্তু আরো তিনজনের নাম ঢুকিয়ে দিতে হবে। তখন আমি কবুল বলে আকসুর কাছে যাই।”

তিনি বলেন, “এরপর আকসু এসে আমাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তাদেরকে সব বলে দিয়েছি যা যা উৎপল দা শিখিয়ে দিয়েছেন। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে আকসু চলে যায়, আমিও চলে আসি। রাতের খাবার দাবার খেয়ে বিছানায় যাই। যখন বালিশে মাথা রাখি, তখনই ঘটনাটা ঘটে। প্রথমে আমার মাথায় দুইটা চক্কর খায়। তারপর বমি বমি ভাব হয়। কিন্তু বমি আসে নাই। ঠিক সে সময় আচমকা মনে পড়ে আমিতো তারেক ভাইয়াকে টেন পার্সেন্ট কার্টেসি দেই নাই!” এ সময় উৎপল শুভ্র চোখের জল ধরে রাখতে পারেননি। তিনি আশরাফুলের দিকে তাকিয়ে জল ছেড়ে দেন।

উৎপল শুভ্রের কান্না দেখে মানসিক চাপে পড়ে যান আশরাফুল। এ সময় শক্ত হাতে মাইক্রোফোন মুঠ করে ধরে চাপ সামাল দেন তিনি। চাপ সামাল দিয়ে বলেন, “তত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা ফিরে আসলে উৎপল শুভ্র আমাকে টাকা দিবেন। তারপর আমি হজ্জ্বে যাবো। ভাইয়াও হজ্জ্বে আসবেন। তখন আমি তাকে লেট ফি সহ টেন পার্সেন্ট কার্টেসি বুঝিয়ে দিবো।”

 

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: