আর্কাইভ থেকে

প্রধান গেলমানের বক্তব্য রাখছেন ডা. ফখরুদ্দিন মানিক

গেলমান বলে কি ওরা শ্রমিক নয়!

মগবাজার এক্সক্লুসিভ

আজ ১লা মে। শ্রমিকের দিন, শ্রমের দিন। ১৮৮৪ সালে যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো শহরের একদল শ্রমিক দৈনিক ৮ ঘণ্টা কাজ করার জন্য আন্দোলন শুরু করেন, এবং তাদের এ দাবী কার্যকর করার জন্য তারা সময় বেঁধে দেয় ১৮৮৬ সালের ১লা মে। কিন্তু বাংলাদেশে আজো শ্রমিকের সংজ্ঞাই নিরূপিত হয়নি।

বাংলাদেশের ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, শিক্ষক, ব্যবসায়ী, সুইপার, বিদ্যুত শ্রমিক, ইমাম, অভিনয় শিল্পী,পতিতা সহ বহু পেশা স্বীকৃতি পেলেও ঐতিহ্যবাহী রাজনৈতিক দল জামায়াতে ইসলামীর নেতাদের খেদমতে নিয়োজিত থাকা গেলমান গোত্রকে আজো কোন সুনির্দিষ্ট পেশাজীবি হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়নি।

জামায়াত না থাকলে দেশে ইসলাম থাকবে না। আর সে জামায়াত নেতাদের শারিরীক উত্তেজনা প্রমশিত রেখে দেশ ও জাতির কল্যানে কাজ করার সুযোগ করে দেয় বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্র শিবির (গেলমান)। অথচ আজকের এই শ্রমিক দিবসে কেউ তাদের খবর রাখে না।

বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবির আজ রাত ১২টায় নগরীর বাল ফালাহ মিলনায়তনে পবিত্র মে দিবসের এক আলোচনা সভার আয়োজন করে। সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি ডা. ফখরুদ্দিন মানিক প্রধান গেলমানের আসনে যত্নের সাথে পাছা রাখেন। নিজামী এবং আলী আহসান মুহম্মদ মুজাহিদ জেলে থাকার কারণে আসন হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভারপ্রাপ্ত আমির মকবুল খানকির পোলা।

ডা. ফখরুদ্দিন বলেন, “দেশ স্বাধীন হয়েছে আজ এতোদিন। অথচ কোন সরকারই আমাদেরকে শ্রমিক হিসেবে স্বীকৃতি দেয়নি। আমরা আমাদের স্বীকৃতি চাই।”

প্রয়োজনে আমিনীর সাথে হাত মিলিয়ে দেশ অচল করে দেয়ার হুমকিও দেন তিনি। তিনি বলেন, “দিনের পর দিনের জন্ম পরিচয়হীন বেওয়ারিশ কুত্তার মতো আমাদের সংখ্যা বেড়েই চলছে। অথচ সরকার এখনো আমাদের দিকে চোখ ফেলেনি। আমরা আমাদের পেশার স্বীকৃতি চাই, এ স্বীকৃতি দিতে হবে।”

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মকবুল খানকির পোলা বলেন, “গেলমান বলে কি ওরা শ্রমিক নয়! আমাদের পবিত্র কোলের সম্মান এ বাকশালি সরকার দেবে না। কেবলমাত্র আমাদের কোলে বসে বলে সরকার তাদেরকে স্বীকৃতি দিচ্ছে না।”

বিগত ৪দলীয় জোট সরকারের সমালোচনা করে মকবুল খানকির পোলা বলেন, “আপনাদের চোখের সামনের এসব গেলমানদেরকে বিএনপি নেতারাও ব্যবহার করেছে। ওদের কোলেও বসেছে কচি বালকেরা। অথচ ওরাও বেইমানি করেছে।”

আলোচনা সভা শেষে সবাই মিলেমিশে কোল বদল করে দিবস উদযাপনের কর্মসূচী শুরু করে। মকবুল খানকির পোলা যাবার সময় অন্তত ৩জন গেলমানকে সাথে করে নিয়ে যান।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: